খুলনাসহ ৮বিভাগে ১০০ শয্যাবিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ ক্যান্সার চিকিৎসা কেন্দ্র উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

SK-Lead-10012022-fcv-b71.jpg

প্রতি‌দিন ডেস্ক:খুলনাসহ দেশের আটটি বিভাগীয় শহরের মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১০০ শয্যাবিশিষ্ট পূর্ণাঙ্গ ক্যান্সার চিকিৎসা কেন্দ্র নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রকল্পটির ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন উপলক্ষে রবিবার সকালে রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে সংযুক্ত হন প্রধানমন্ত্রী।
বিভাগীয় মেডিকেল কলেজ হাসপাতালগুলোতে ক্যান্সার ইউনিট স্থাপনের কাজ দ্রুত শেষ করার নির্দেশনা দিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, দ্রুত ও মান সম্পন্ন কাজ যেন হয়, সেদিকে বিশেষ ভাবে দৃষ্টি দিতে হবে।

জটিল ও কঠিন রোগের চিকিৎসা তৃণমূল পর্যায় পর্যন্ত নিয়ে যেতে সরকারের উদ্যোগের কথা জানিয়ে সরকার প্রধান বলেন, আমরা ইতোমধ্যে অন্যান্য জটিল রোগসহ ক্যান্সার চিকিৎসা সহজলভ্য করতে বিভাগীয় ও জেলা পর্যায়ে হৃদরোগ, কিডনি, ক্যান্সার রোগের সেবা বাড়ানোর উদ্যোগ গ্রহণ করেছি।

তিনি বলেন, আমরা চাচ্ছি যে শুধু রাজধানীমুখী না, এর সেবাটা একেবারে তৃণমূল মানুষ যেন পায় সেজন্য প্রত্যেকটা বিভাগেই আমরা এটা প্রতিষ্ঠা করতে চাই।
ক্যান্সার, কিডনি ও হৃদরোগ থেকে বাঁচতে সবাইকে ‘বিশেষ ভাবে’ সচেতন হওয়ার আহবান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, আমাদের দেশে ক্যান্সারের প্রাদুর্ভাব একটু বেশি দেখা যাচ্ছে, কিডনি রোগের প্রাদুর্ভাব দেখা যাচ্ছে, হার্টের রোগের (হৃদরোগ) প্রাদুর্ভাব দেখা যাচ্ছে। এক্ষেত্রে জনগণকে বলবো এসব ব্যাপারগুলো যখন বেশি দেখা যাচ্ছে তখন স্বাস্থ্য সুরক্ষাটা মানা এবং কী কী স্বাস্থ্যবিধি মানলে নিজেকে সুস্থ রাখা যায় ও খাদ্য অভ্যাস থেকে শুরু করে সব ব্যাপারে সবাইকে একটু বিশেষ ভাবে সচেতন হবার জন্য আমি আহবান জানাচ্ছি।

কোভিড-১৯ এর টিকা নেওয়ার পাশাপাশি সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহবান জানিয়ে সরকার প্রধান বলেন, এ অতিমারি এটাকে যেভাবেই হোক আমাদের মোকাবিলা করতে হবে। এজন্য মানুষের মধ্যে সচেতনতা সৃষ্টি করতে হবে।
ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তন প্রান্তে অন্যদের মধ্যে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

খুলনা : বিভাগীয় শহরে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৪৬০ শয্যা বিশিষ্ট সমন্বিত ক্যান্সার, কিডনী ও হৃদরোগ ইউনিটের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন প্রধানমন্ত্রী । খুলনা প্রান্তে জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষ থেকে যুক্ত হয়ে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ইউনিটের ফলক উন্মোচন করেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক। এ সময় বিভাগীয় কমিশনার মোঃ ইসমাইল হোসেন, পুলিশ কমিশনার মোঃ মাসুদুর রহমান ভূঞা, জেলা প্রশাসক মোঃ মনিরুজ্জামান তালুকদার, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ হারুনুর রশীদ, খুলনা মেডিকেল কলেজের উপাধ্যক্ষ ডাঃ মেহেদী নেওয়াজ, সিভিল সার্জন ডাঃ নিয়াজ মোহাম্মদ, নগর আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক এমডিএ বাবুল রানাসহ বিভিন্ন সরকারি দপ্তরের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, বিএমএ ও স্বাচিবের সদস্যগণ উপস্থিত ছিলেন।

সরকারের নির্বাচনী ইস্তেহার অনুযায়ী বিভাগীয় পর্যায়ে নির্মিতব্য এই সমন্বিত ইউটিটের মধ্যে ক্যান্সারের জন্য ১১৫টি কিডনীর জন্য ১৬৫টি এবং হৃদরোগ চিকিৎসার জন্য ১৮০টি শয্যা থাকবে। ৮ বিভাগ মিলে সর্বমোট তিন হাজার ছয়শ’ ৮০টি শয্যা থাকবে এবং এই প্রকল্পের মোট ব্যয় ধরা হয়েছে দুই হাজার তিনশ’ ৮৮ কোটি টাকা। এই প্রকল্প বাস্তবায়নের ফলে তৃণমূল পর্যায়ে অসংক্রামক রোগের চিকিৎসা সহজ লভ্য হবে, বিদেশে চিকিৎসা গ্রহণের প্রবণতা কমবে এবং বিপুল পরিমাণ অর্থ সাশ্রয় হবে।

Share this post

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top
error: Content is protected !!