বটিয়াঘাটায় এক সপ্তাহের ব্যবধানে ৩নারী গণধর্ষনের শিকার

Gangrape-600x325-1.jpg

নিজস্ব প্রতিবেদক//
বটিয়াঘাটা থানাধিন দারোগার ভিটা এলাকার এক গৃহবধূ (৩৮) গণধর্ষনের শিকার হয়েছেন। গতকাল শবিবার দুপুরে তাকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টার ওসিসিতে ভর্তি করা হয়েছে। ৪/৫জন মুখোশধারী দুর্বৃত্ত গভীর রাতে ঘরের দরজা ভেঙ্গে তাকে গণধর্ষন করেছে বলে জানা গেছে। তবে এঘটনায় শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত অপরাধীদের মধ্যে কেউ আটক হয়নি। গত সপ্তাহে একই থানা এলাকায় দুই খালাতো বোন গণধর্ষনের শিকার হয়।
গৃহবধূর পরিবার সুত্রে জানা গেছে, শুক্রবার দিবাগত রাত সোয়া ২টার দিকে ওই গৃহবধূ শিশু সন্তানকে নিয়ে ঘুমাচ্ছিলেন। এসময় ঘরের দরজা ভেঙ্গে মুখোশধারী ৪/৫জন দুর্বৃত্ত ভেতরে প্রবেশ করে। ওই গৃহবধূকে দেশীয় অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে পালাক্রমে ধর্ষনের অভিযোগ করা হয়। তার স্বামী প্রথম স্ত্রীর বাড়িতে থাকায় তিনি একাই ছিলেন। গতকাল শনিবার সকালে পাশের আত্মীয়রা এসে বিবস্ত্র ও অচেতন অবস্থায় ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করে। এরপর তার স্বামী খবর পেয়ে বাসায় এসে তাকে নিয়ে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মেডিসিন ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। পরবর্তিতে তাকে ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টার (ওসিসি)তে ভর্তি করা হয়েছে।

পরিবারের সদস্যরা আরও জানান, ভিকটিমের শারীরিক অবস্থা খুবই খারাপ। তার চিকিৎসা শেষে আইনী সহায়তার জন্য থানায় যাওয়া হবে।

এবিষয়ে বটিয়াঘাটা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ শাহ জালাল জানান, ঘটনার খবর পেয়েছি। এবিষয়ে তদন্ত চলছে।

উল্লেখ্য, গত ১৫ মে গভীর রাতে বটিয়াঘাটা থানাধিন বালিয়াডাঙ্গা ইউনিয়নের ফুলবাড়ি এলাকায় ঘরে ঢুকে হাত-পা বেঁধে খালাতো দুই বোনকে সংঘবদ্ধভাবে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনায় পরদিন গভীর রাতে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে র‌্যাব-৬ প্রধান দু’জন ও থানা পুলিশ একজন আসামিকে গ্রেফতার করেন।

Share this post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top
error: Content is protected !!