ছাড়পত্র পেলো ডায়মন্ডের ‘রোহিঙ্গা’

rohinga.jpg

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত নির্মাতা সৈয়দ অহিদুজ্জামান ডায়মন্ড ২০১৭ সালের নির্মাণ শুরু করেছিলেন ভিন্নধর্মী চলচ্চিত্র ‘রোহিঙ্গা’। মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের মানবেতর জীবন নিয়েই এর গল্প। ছবিটির নানা ধাপ শেষ করে জমা পড়েছিল বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডে।

যা গতকাল (২ নভেম্বর) বিনা কর্তনে ছাড়পত্র পেয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নির্মাতা নিজেই।

তিনি বলেন, ‘‘অনেক কিছুর মতো আমরাও ‘রোহিঙ্গা’ মুক্তির প্রহর গুনছিলাম। প্রহর শেষ। হাতে পেয়েছি এর ছাড়পত্র। শিগগিরই এটি দর্শকরা দেখতে পারবেন।’’

কক্সবাজারের উখিয়া ক্যাম্পে ২০১৭ সালের সেপ্টেম্বর ছবিটির শুটিং শুরু হয়েছিল। নাফ নদী, শাহপরী দ্বীপ, টেকনাফসহ বিভিন্ন স্থানে এর কাজ হয়েছে।

২০২০ সালে এটি মুক্তির কথা ছিল। কিন্তু করোনার কারণে এই পরিকল্পনা ভেস্তে যায়। ছবিটিতে ডায়মন্ডের সঙ্গে যৌথভাবে এটি প্রযোজনা করেছেন শবনম শেহনাজ চৌধুরী।

সিনেমায় রোহিঙ্গা নারীর চরিত্রে অভিনয় করছেন আরশি। আরও আছেন ওমর আয়াজ অনি, সূচি, সাগর, বৃষ্টি, তানজিদ, হায়াতুজ্জামান, গোলাম রাব্বানী, মিন্টু, শ্রেয়া, তাওহিদ, ইনাম আহমেদ প্রমুখ।

২০০৯ সালে নির্মিত ‘গঙ্গাযাত্রা’র জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান সৈয়দ অহিদুজ্জামান ডায়মন্ড। সবশেষ ২০১৭ সালে তিনি পরিচালনা করেন ‘শেষ কথা’। এতে প্রধান দুই চরিত্রে অভিনয় করেছেন কলকাতার সমদর্শী দত্ত ও বাংলাদেশের আইরিন সুলতানা।

Share this post

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top
error: Content is protected !!