ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে ১৫ কিলোমিটার যানজট

113906Untitled-2-1.jpg

ডেস্ক রিপোর্ট: বৃষ্টির কারণে ঢাকা-টাঙ্গাইল-বঙ্গবন্ধুসেতু মহাসড়কে ১৫ কিলোমিটার এলাকায় ধীরগতিতে যানবাহন চলাচল করছে। ফলে যানজটেরও সৃষ্টি হয়েছে। তবে বেলা বাড়ার সাথে সাথে যান চলাচল স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে।

আজ শুক্রবার (৪ ফেব্রুয়ারি) ভোররাত থেকে বঙ্গবন্ধু সেতুর পূর্ব পাড় থেকে পৌলী পর্যন্ত ১৫ কিলোমিটার মহাসড়কে এ অবস্থার সৃষ্টি হয়।

এলেঙ্গা হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইয়াসির আরাফাত বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
যানজটের কারণে গাড়িতে থাকা নারী ও শিশুরা ভোগান্তি পড়েন। অন্যদিকে কাঁচামালবোঝাই ট্রাকগুলো সময়মতো গন্তব্যে যেতে না পারলে ক্ষতির আশঙ্কা করছেন চালক-মালিকরা।

একাধিক যানের চালকরা জানান বলেন, দীর্ঘ সময় ধরে অত্যন্ত ধীরগতিতে গাড়ি চলতেছে। আবার যানজটও লাগছে।

আটকেপড়া যাত্রীরা বলেন, শুক্রবার সাপ্তাহিক ছুটিতে এমনিতেই সড়কে যানবাহন বেশি থাকে। অনেকেই বাড়ি যান। আজকে যানজট হওয়া আমরা চরম ভোগান্তিতে পড়েছি।

ইনচার্জ ইয়াসির আরাফাত বলেন, রাতে বৃষ্টি হওয়ার পর যানবাহনের চালকরা গাড়িতে ঘুমিয়ে পড়েন। এতে ভোররাত থেকে গাড়ির চাপ বেড়ে যাওয়ায় এই যানজটের সৃষ্টি হয়। যানজট নিরসনে পুলিশ রাস্তায় আছে। বেলা বাড়ার সাথে সাথে মহাসড়ক স্বাভাবিক হচ্ছে।

বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্ব থানার ওসি সফিকুল ইসলাম বলেন, শুক্রবার অতিরিক্ত গাড়ির চাপ ও বৃষ্টির কারণে সড়কে যানবাহন ধীরগতিতে চলছিল। ভোর থেকে সকাল ৮টা পর্যন্ত এ পরিস্থিতি ছিল। তবে এখন মহাসড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক আছে।

উল্লেখ্য, উত্তরবঙ্গের প্রবেশদ্বার এ মহাসড়ক দিয়ে কমপক্ষে ২৩টি জেলার যানবাহন চলাচল করে। বঙ্গবন্ধু সেতু দিয়ে প্রতিদিন গড়ে ১৪-১৫ হাজার ছোটবড় যান পারাপার হয়। ফলে ধীরগতি, যানজট ও দুর্ঘটনা মহাসড়কের এ অংশে প্রায়ই ঘটে থাকে।

Share this post

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top